রবিবার, ২৯ জানুয়ারী ২০২৩, ১১:০৯ পূর্বাহ্ন

সংবাদ শিরোনাম :
নারায়ণগঞ্জ জেলা সাহিত্য ফাউন্ডেশন কর্তৃক কবি মোঃ আলাল’র স্মরণ সভা বি.ডাব্লিউ.সি.এন এর নিয়মিত সাহিত্য আড্ডা অনুষ্ঠিত আন্তর্জাতিক লেখক দিবস : না’গঞ্জ রাইটার্স ক্লাবের উদযাপন পরিষদ গঠন সৈয়দ মুন্নার বিরুদ্ধে ধর্ষনের ঘটনা ধামাচাপা দিতে টাকা নেয়ার অভিযোগ আন্তর্জাতিক নারী নির্যাতন প্রতিরোধ পক্ষ ও বিশ্ব মানবাধিকার দিবস উপলক্ষে সংবাদ সম্মেলন ফতুল্লায় চোর-পুলিশ নাটক মঞ্চায়িত এসএসসি ১৯৮৬ বাংলাদেশ’র না’গঞ্জ জেলা কমিটি ঘোষণা নারায়ণগঞ্জে বিশ্ব এইডস দিবস পালিত বন্দরে রাজউকের উচ্ছেদ অভিযান, ভবন মালিকদের জরিমানা নারায়ণগঞ্জে ৩ থানায় পুলিশের মামলা ॥ বিএনপির ১৯৬ জন আসামী

সৈয়দ মুন্নার বিরুদ্ধে ধর্ষনের ঘটনা ধামাচাপা দিতে টাকা নেয়ার অভিযোগ

বিডি নিউজ আই,  নারায়ণগঞ্জ: নারায়ণগঞ্জ সদর উপজেলার ফতুল্লায় এক নারী (১৫) শ্রমিককে হাত-পা বেধে ধর্ষনের অভিযোগ উঠেছে হোসিয়ারী মালিক জোবায়ের ওরফে হৃদয় মোল্লা (২৭) নামের এক লম্পটের বিরুদ্ধে। গত বুধবার দিবাগত রাত ফতুল্লার দাপা র‌্যামবো ডাইং সংলগ্ন ভাই ভাই হ্োিসয়ারী নামক একটি প্রতিষ্ঠানের ভিতর এ ঘটনা ঘটে। এদিকে নিরীহ নারী শ্রমিক এবং তার পরিবারের সদস্যদের কিছু টাকা দিয়ে মুখ বন্ধ করানো হবে এ মর্মে হোসিয়ারী মালিক জোবায়ের ওরফে হৃদয় মোল্লার কাছ থেকে প্রায় ১৮ হাজার টাকা হাতিয়ে নেয়ার অভিযোগ উঠেছে সৈয়দ মুন্না নামে এক পাতি নেতার বিরুদ্ধে।

এ ঘটনায় ধর্ষনের শিকার মামলা দায়ের করতে চাইলে ক্ষমতাসীনদলের কিছু পাতি নেতার মিমাংসার নামে অব্যাহত হুমকির কারনে সম্ভব হয়ে উঠেনি বলে অভিযোগে জানানো হয়। পরবর্তীতে সাংবাদিকদের সহযোগিতায় নির্যাতিত ঐ নারী শ্রমিক ও তার পরিবারের সদস্যদের আইনগত বিভিন্ন সুযোগ সুবিধার নিশ্চয়তার আশ্বাসে এ ঘটনায় শনিবার রাতে ঐ নারী শ্রমিক ফতুল্লা মডেল থানায় লিখিত অভিযোগ দায়ের করেছেন।

নারী শ্রমিক ঝর্না (ছদ্দনাম) জানান, গত এক বছর পূর্বে দাপা এলাকায় অবস্থিত ভাই ভাই হোসিয়ারী নামক একটি প্রতিষ্ঠানে নারী শ্রমিক হিসেবে যোগদান করেন তিনি। যোগদানের কিছুদিন পর থেকেই প্রতিষ্ঠানের মালিক জোবায়ের ওরফে হৃদয় মোল্লা বিভিন্ন সময়ে তাকে কু-প্রস্তাবসহ নানা ভাবে হয়রানী করে আসত। গত বুধবার রাতে নাইট ডিউটি করার কথা বলে লম্পট জোবায়ের ওরফে হৃদয় মোল্লা তাকেসহ আরো দুইজন শ্রমিককে থাকতে বলেন। এক পর্যায়ে কিছুক্ষন পর জোবায়ের তাকে পাশের রুমে ডেকে নিয়ে আসেন এবং রুমের লাইট নিভিয়ে দিয়ে তার হাত এবং পা রসি দিয়ে টেবিলের সাথে বেদে ইচ্ছার বিরুদ্ধে ধর্ষন করেন। ধর্ষন শেষে এ ঘটনার বিষয়ে কাউকে জানালে তার ছোট বোনকে হত্যা করবে বলে হুমকি প্রদান করা হয়। পরবর্তীতে ঐ নারী শ্রমিক তার ছোট বোনের জীবনের নিরাপত্তার কথা ভেবে কয়েকদিন ধর্ষনের ঘটনা গোঁপন রাখার পর মেয়েটির শারীরিক ভাবে অসুস্থবোধ করলে মেয়েটির মা’কে বিস্তারিত সব জানানো হয়। বিষয়টি দ্রুত জানা জানি হয়ে পড়লেও সৈয়দ মুন্না দলবল নিয়ে উক্ত প্রতিষ্ঠানে হানা দিয়ে ভয়ভীতি দেখিয়ে দু’ধাপে প্রায় ১৮ হাজার টাকা হাতিয়ে নেয় হোসিয়ারী মালিক জোবায়ের ওরফে হৃদয় মোল্লার কাছ থেকে। এর আগেও এরুপ ঘটনায় উক্ত মালিকের হোসিয়ারীর মেশিন বিক্রি করেও মোটা অংকের টাকা হাতিয়ে নিয়েছিলো এ মুন্নাগং। এ বিষয়ে তথ্য সংগ্রহ করতে গিয়ে স্থানীয় গনমাধ্যমকর্মীদের কাছেও মুন্নার বিরুদ্ধে নালিশ জানায় ধর্ষকের কাছ থেকে টাকা নেয়ার বিষয়টি।

নাম প্রকাশে অনিচ্ছুক স্থানীয় অনেকেই বলেন,ছাত্রলীগ নেতা পরিচয়দানকারী সৈয়দ মুন্না একটি সিন্ডিকেটের মাধ্যমে সেখানে বসবাসরত নিরীহ বাসিন্দাদের বিভিন্নভাবে ভীতি প্রদান করে টাকা হাতিয়ে নেয়। তারা আরও বলেন,প্রায় ৩ বছর পুর্বে একটি এসিড মামলায় স্থানীয় এক শিল্প-মালিকের বিরুদ্ধে মিথ্যা মামলা দিয়ে তাকে জেলও খাটায় এ মুন্না। ধর্ষনের বিষয়ে টাকা হাতিয়ে নেয়ার ঘটনাটি স্থানীয় ইউপি মেম্বারও বলেছেন মুন্নার ব্যাপারে।

এ বিষয়ে অভিযুক্ত ছাত্রলীগ নেতা পরিচয়দানকারী সৈয়দ মুন্নার ব্যবহৃত মুঠোফোনে ( ০১৯৪২৮২২৪@@) জানতে চাইলে তিনি বলেন,ভাই এ ঘটনা সর্ম্পকে আমি কিছুই জানিনা। বিষয়টি স্থানীয় মেম্বারসহ অনেকেই জানেন এমন প্রশ্নের জবাবে মুন্না বলেন,তাহলে আপনি মেম্বারকেই ফোন দিয়ে জানেন।

 

নিউজটি শেয়ার করুন...

আপনার মন্তব্য প্রদান করুন...


© All rights reserved © 2020 bdnewseye.com
Developed BY M HOST BD