বৃহস্পতিবার, ১৭ জুন ২০২১, ০৩:১৩ অপরাহ্ন

কবি অরুণিমা মন্ডল দাস-এর তিনটি কবিতা

কবি অরুণিমা মন্ডল দাস

ভাষাদিবস

‘ভাষা’ ভারতে কুলকুচি করার পর
জলীয় বাষ্পে’র আভাষটাই হল আমাদের বাংলা ভাষা
বাঙালীদের ভাষা
খাট টেবিল চাপড়ানোর ভাষা
পণ দেওয়া নেওয়া র ভাষা
বাউলের ভাষা
আমাদের এই বাংলা ভাষা
পেটে ভাত” চড়ানোর ভাষা নয়
কলমের আগায় হীরে লাগানোর ভাষা নয়
মেধা ছুটানোর ভাষা নয়
কনে সেজে থাকা একটা ঘোমটা সার?
শুভদৃষ্টি র ভালোবাসায় সংসার সাজানো মাত্র!
বাসর কান্নার দৌলতে বাচ্চা প্রসব কেবল?
মোটা টাকা ইনকামের ভাষা নয়
বাংলা কবিতা র নচ্ছারমি র ভাষা
মরুভূমি র উপর দিয়ে বালি শুষে নেওয়া আবেগময় সাগর আমাদের এই বাংলা ভাষা”?

বাংলার বঙ্গবন্ধু

দুচোখে সোনার বাংলার স্বপ্ন দেখা
এক বলিষ্ঠ উজ্জ্বল তরুন!
ব্যাথাগুলো লম্বা বাঁশের মতো তরতর
করে বেড়ে ওঠে…
কৃষকের ধানের ক্ষেত বেয়ে চোখের জল ভেসে যায়…

হাওয়াতে জোর গলার চিৎকার-কাকের চুপথাকা-সম্মতি…
রেসকোর্সে ৭ই মার্চের অগ্নিঝরা ভাষন
বাঙালী কখনো বাঙালীদের বুকে র পাথর সরায় না -বুলেটে খানখান করে দেয়
সাপগুলো বেরিয়ে আসতে থাকে…
স্বাধীন বাংলাদেশের বুকে- মাঠ খাল বিল অফিস স্কুল “বিষে” নীল?
কৃষক, জল, মাছ ,প্রকৃতি সংস্কৃতি থাকলেও…
উন্নয়ন থাকে না-
মীরজাফর” দের দেশে ”সিরাজদের””
মরে যেতেই হয় ! বাঁচার কোন অধিকার নেই
শুধু ই দেখা যায়
নেউল আর সাপেদের লড়াই?

কলকাতা ও আমার মা

দমদম থেকে পুরো কলকাতা র মাটি ময়লার গন্ধে মাথা ঘুরছিল
এলোমেলো পরিবেশ বাস্তববাদী কথাবার্তা পাক খাচ্ছে
বিধবা দের স্বাধীনতা নেই
কেউ না কেউ হাঁড়ির দায়িত্বে থাকে…
সাদা পোশাক দেখলেই রসায়নের চরম সূত্রগুলো মনে পড়ে যায়
মা কে আমার সাউথ পয়েন্ট স্কুলের গণিতের টিচার মনে হতো
নাক কুঁচকে কাছে এলেই নামতা আর ঐকিক নিয়মের রাক্ষুষে চিৎকার ঝরে পড়ত
জ্যামিতির ছবিগুলো তবু হৃতিক সলমনে’র খেলার মাঠ মনে করায়

কিন্তু…
পাটিগণিত বীজগণিত ইতিহাসের সাল দেখলেই

জ্বর মাথা যন্ত্রণা তপ সাপের বিষাক্ত ছোবল অস্থির করে—

মায়ের মা ছিল
আমার মা নেই

মায়ের বাবা ছিল
আমার বাবাকে বোবা বানালো

মায়ের ইচ্ছা ছিল
আমার ইচ্ছা’র কোন দাম নেই?

মায়ের বান্ধবীরা ছিল…
আমার কবিতারা আছে ¡?

কাকদ্বীপ,ভারত।

নিউজটি শেয়ার করুন...

আপনার মন্তব্য প্রদান করুন...


© All rights reserved © 2020 bdnewseye.com
Developed BY M HOST BD